Indian-Railways-has-introduced-new-rules-for-cancellation-of-tickets

ভারতবাসী বরাবরই ঘুরতে যেতে ভালোবাসে। ইতিমধ্যেই কোভিডের সংক্রমণ খানিকটা কম হওয়ার জেরে অনেকেই বিভিন্ন জায়গায় ঘুরতে যাচ্ছে। আর দীর্ঘপথের যাত্রার ক্ষেত্রে বেশিরভাগ সাধারণ মানুষই ট্রেনে ভ্রমণ করতে পছন্দ করে। আর তাই সাধারণ নাগরিকদের কথা ভেবে ভারতীয় রেলওয়ের তরফে বরাবরই কম দামে ভ্রমণ প্যাকেজ থেকে শুরু করে সহজে টিকিট বুক করার পদ্ধতি সহ বিভিন্ন ধরনের সুবিধা প্রদান করা হয়ে থাকে। যাত্রীদের সুবিধার্থে বিভিন্ন নতুন নিয়ম চালু করার পাশাপাশি পুরনো নিয়মেও বিভিন্ন ধরণের বদল করা হয়ে থাকে ভারতীয় রেল কর্তৃপক্ষের পক্ষ থেকে।

তবে অনেকক্ষেত্রেই বিভিন্ন কারণে শেষ মুহূর্তে বাতিল করতে হয় ঘোরার প্ল্যান কিংবা রেলের কোনো সমস্যার কারণে রেলের তরফেই ট্রেন বাতিল ঘোষণা করা হয়। ফলত যাত্রীদের বাতিল করতে হয় তাদের ট্রেনের টিকিট। নচেৎ কোনোভাবেই আপনাদের টিকিটের টাকা ফেরত পাওয়া সম্ভব নয়। যার জেরে অনেক সময় বিভিন্ন সমস্যার সম্মুখীন হতে হয় যাত্রীদের। যাত্রীদের সুবিধার কথা মাথায় রেখে ভারতীয় ট্রেনের তরফে এমন কিছু সুবিধা আনা হয়েছে, যার মাধ্যমে মাত্র কয়েক মিনিটেই আপনারা আপনাদের ট্রেনের টিকিট বাতিল করতে পারবেন। আর আজ আমরা আলোচনা করতে চলেছি, কিভাবে আপনারা টিকিট বুকিং এর পরে নিজেদের টিকিট বাতিল করতে পারবেন।

এখন ট্রেনে উঠেও কাটা যাবে টিকিট, জেনে নিন রেলের নতুন নিয়ম

কিছুদিন পূর্বেই ট্যুইটারে এক যাত্রী ভারতীয় রেলের বিরুদ্ধে অভিযোগ করেছিলেন যে, তিনি তৎকালে ট্রেনের টিকট বুক করেছিলেন; কিন্তু ট্রেন বাতিল করা হলেও তিনি টিকিট বাতিল করে টিকিটের অর্থ ফেরত পাচ্ছেন না। আর এই যাত্রীর ট্যুইটের উত্তরেই ভারতীয় রেলের পক্ষ থেকে তাদের নতুন সুবিধার কথা ঘোষণা করা হয়েছিলো। ভারতীয় রেলের তরফের ওই ট্যুইটে বলা হয়েছিলো, যদি যাত্রীরা টিকিট বাতিলের ক্ষেত্রে সমস্যার সম্মুখীন হন তবে তারা [email protected] ইমেইল অ্যাড্রেসটিতে ই-মেইল করে টিকিট বাতিল করতে পারবেন অথবা irctc.co.in ওয়েবসাইটের মাধ্যমেও টিকিট বাতিল করার সুবিধা পাবেন। এছাড়াও আপনার রেলওয়ে নিজস্ব অ্যাপের মাধ্যমে টিকিট বাতিল করতে পারবেন।

এবার ক্যাশ টাকা লেনদেনেও থাকবে সরকারের চোখ, গুরুত্বপূর্ণ খবর জেনে নিন

ট্যুইটের মাধ্যমে নিজেদের নতুন সুবিধার কথা ঘোষণা করার পাশাপাশি কর্তৃপক্ষের তরফে আরেকটি ট্যুইটে এও জানানো হয়েছে যে, রেলওয়ে অপারেশনাল কারণে বিভিন্ন ট্রেন বাতিল করা হয়ে থাকে। ভারতীয় রেলের পক্ষে সম্ভবপর হলে যে কোনো সময়ে ট্রেন স্বাভাবিকভাবে চালানো হতে পারে। অধিকাংশ ক্ষেত্রেই নির্দিষ্ট চার্টের মাধ্যমে চূড়ান্ত অবস্থা জানিয়ে দেওয়া হয়ে থাকে। ভ্রমণকারীকে অবশ্যই এ বিষয়গুলি মাথায় রাখা উচিত। নচেৎ তাদের টিকিট বাতিল করার জন্য চার্জ দিতে হতে পারে।