বিনিয়োগ

Post Office scheme: একবার বিনিয়োগ করলেই বছর শেষে হাতে পাবেন ৫৯,৪০০ টাকা, পোস্ট অফিসের নতুন স্কিম, জেনে নিন এখনই

পুজো মানেই উৎসব, আর উৎসব মানেই শুভ সূচনা। আর সমগ্র ভারত জুড়ে প্রচুর মানুষ এই উৎসবের মরশুমে বিভিন্ন ক্ষেত্রে বিনিয়োগ করে থাকেন। তবে বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই মানুষ এমন ক্ষেত্রে বিনিয়োগ করতে চান যেখানে তারা বিনিয়োগ করে নিশ্চিত রিটার্ন পাবেন এবং বিনিয়োগ অবশ্যই সুরক্ষিত ক্ষেত্রে করা হবে। আর তাই এই উৎসবের মরশুমে ভারতীয় ডাক বিভাগের তরফে সমগ্র ভারতবাসীর কথা মাথায় রেখে কিছু বিশেষ পরিকল্পনা আনা হয়েছে। আর এর মধ্যে যে আমরা আজ এমন একটি বিশেষ স্কিমের সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য নিয়ে হাজির হয়েছি যে স্কিমে টাকা জমালে প্রতিবছরে আপনারা ৫৯,৪০০ টাকা হাতে পেয়ে যাবেন (Post Office scheme)।

চলুন তবে ভারতীয় ডাক বিভাগের এই স্কিমটি সম্পর্কে বিস্তারিত জেনে নেওয়া যাক:-
ভারতীয় ডাক বিভাগের তরফে আমজনতার জন্য কার্যকরী এই বিশেষ স্কিমটি পোস্ট অফিস মান্থলি সেভিংস স্কিম নামে পরিচিত। পোস্ট অফিসের তরফে কার্যকরী এই স্কিমটি এমন একটি বিশেষ প্রকল্প, যার মাধ্যমে আপনারা স্বামী-স্ত্রী দুজনে অর্থাৎ আপনি চাইলে জয়েন্ট অ্যাকাউন্টের মাধ্যমেও বিনিয়োগ করতে পারবেন এবং প্রত্যেক বছরে ৫৯,৪০০ টাকা পেয়ে যাবেন। যদিও আপনার যদি জয়েন্ট একাউন্ট না থাকে তাহলেও আপনি এই স্কিমে বিনিয়োগ করতে পারবেন। তবে জয়েন্ট অ্যাকাউন্টের ক্ষেত্রে লাভ অনেকটাই বেশি।

এই স্কিমের অধীনে কি সুবিধা পাওয়া যাবে?
১. পোস্ট অফিস মান্থলি সেভিংস স্কিমের অধীনে আপনি যদি আপনার একক অ্যাকাউন্টের মাধ্যমে বিনিয়োগ করেন তবে আপনি সর্বনিম্ন ১০০০ টাকা এবং সর্বোচ্চ ৪.৫ লক্ষ টাকা পর্যন্ত বিনিয়োগ করতে পারবেন। অন্যদিকে আপনি যদি যৌথ অ্যাকাউন্ট কিংবা জয়েন্ট অ্যাকাউন্টের মাধ্যমে এই স্কিমে বিনিয়োগ করতে চান তবে আপনি সর্বনিম্ন ২ হাজার টাকা এবং সর্বোচ্চ ৯ লক্ষ টাকা পর্যন্ত বিনিয়োগ করতে পারবেন। এমনকী এই বিশেষ স্কিমের অধীনে তিনজন পর্যন্ত একত্রে বিনিয়োগ করতে পারবেন।

২. এই স্কিমে আপনি ৬.৬ শতাংশ হারে সুদ পেয়ে যাবেন।

৩. এর পাশাপাশি এই স্কিমের অধীনে যে কজন ব্যক্তি একত্র বিনিয়োগ করবেন তাদের প্রত্যেককে লাভের টাকা সমান ভাগে ভাগ করে দেওয়া হবে।

৪. এছাড়াও এই স্কিমের অধীনে আপনি যেকোনো সময় একটি জয়েন্ট অ্যাকাউন্টকে একক অ্যাকাউন্টে এবং একক অ্যাকাউন্টকে জয়েন্ট অ্যাকাউন্টে রূপান্তর করার সুবিধা পাবেন। তবে অ্যাকাউন্টের যেকোনো রকম পরিবর্তনের ক্ষেত্রে অ্যাকাউন্টে যে কজন সদস্যের নাম রয়েছে তাদের সকলকে একত্রে আবেদন করতে হবে।

নভেম্বর মাসে ১০ দিন বন্ধ থাকতে চলেছে ব্যাংক, কোন কোন দিন, জেনে নিন এখনই

এই স্কিমের অধীনে আপনারা কিভাবে টাকা রিটার্ন পাবেন?
পোস্ট অফিস মান্থলি সেভিংস স্কিমের অধীনে আপনি মোট যে পরিমাণ টাকা জমা রেখেছেন তার সুদের ওপরে আপনি কতো টাকা রিটার্ন পাবেন তা হিসাব করা হয়ে থাকে। এরপর আপনার মোট রিটার্নের টাকা ১২ ভাগে ভাগ করা হয়ে থাকে এবং প্রত্যেক মাসে একটি নির্দিষ্ট পরিমাণ টাকা আপনার হাতে তুলে দেওয়া হবে। এমনকী আপনি চাইলে এই রিটার্নের টাকা আপনার অ্যাকাউন্টের মূল অ্যামাউন্টের সঙ্গে যুক্ত করতে পারেন। ফলত আপনার মূল টাকার পরিমাণ বাড়লে সুদের পরিমাণও বাড়বে এবং আপনার হাতে অধিক টাকা রিটার্ন আসবে।

এই স্কিমের অধীনে যদি কোনো যৌথ অ্যাকাউন্টের মাধ্যমে ৯ লক্ষ টাকা বিনিয়োগ করা হয়ে থাকে তবে ৬.৬ শতাংশ সুদের হারে এক বছরে ৫৯, ৪০০ টাকা রিটার্ন পাওয়া যাবে অর্থাৎ প্রতি মাসে আপনার হাতে ৪৯৫০ টাকা আসবে। তবে আপনার মূল আমানত যদি কম হয় অর্থাৎ আপনি কম টাকা বিনিয়োগ করে থাকেন তবে আপনার মাসিক রিটার্নের পরিমাণ কম হবে। আপনি প্রত্যেক বছরে অথবা প্রতি মাসে কতো টাকা হাতে পাবেন তা নির্ভর করছে আপনার মূল আমানতের পরিমাণের ওপর।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button