Trending News

Electricity Bill – রাজ্যে ইলেকট্রিক বিল বাড়ানো হবে, বড় খবর প্রকাশিত হল।

পশ্চিমবঙ্গের নাগরিকদের ইলেকট্রিক বিল বা Electricity Bill নিয়ে এক নতুন চিন্তা শুরু হল। কারণ মে (May), জুন (June), জুলাই (July) মাসের বিল দেখার পরে অনেকেরই চক্ষু চরক গাছ হয়ে গিয়েছিল। কিন্তু যেহেতু এখন গরমকাল চলছে, সেই কারণে অবশ্যই ইলেকট্রিক বিল বেশী আসার কথা, কিন্তু এবারে তো এত বেশী বিল (Electric Bill) এসেছে যা অনেক বেশী বলে মনে করা হচ্ছে। কিন্তু নাগরিকদের কিছু না জানিয়ে এই ধরণের সিদ্ধান্ত কাদের তরফে নেওয়া হল? সরকার (Government Of West Bengal) নাকি WBSEDCL বা রাজ্যের বিদ্যুৎ বণ্টনকারী সংস্থার তরফে?

Electricity Bill Maybe Increase Soon In West Bengal.

তবে আসুন মুদ্দা বিষয়টি জেনে নেওয়া যাক, সত্যিই যে এই Electricity Bill বেশী এসেছে সেই কথা কার্যত মেনে নিয়েছে রাজ্যের বিদ্যুৎ বণ্টনকারী সংস্থা WBSEDCL (West Bengal State Electricity Distribution Corporation Limited) এর তরফে থেকে। কিন্তু নাগরিকদেরকে না জানিয়ে এই ধরণের সিদ্ধান্ত কেন নেওয়া হল এই বিষয়ে জানতে চাওয়া হলে সংস্থার তরফে জানানো হয়।

বর্তমানে রাজ্যের বিদ্যুৎ বণ্টনকারী সংস্থার আর্থিক হাল একদমই ভালো নেই, কারণ বিগত অনেক দিন ধরে মাসুল হার (Electricity Bill) এক টাকাও বৃদ্ধি পায়নি আর এই রকম অবস্থা আরও কিছু দিন চললে আমাদের আরও অনেক ধরণের সমস্যায় পরতে হবে। কিন্তু এই মাসুল বৃদ্ধি করা নিয়ে রাজ্যের সম্মতি পাওয়া যায়নি বলেও জানানো হয়েছে। কিন্তু আবার এই গরমের সময় বেশী পাখা ও এসি চালানোর জন্যই এই বিল বেশী এসেছে বলে জানানো হয়েছে।

কিন্তু অনেক নাগরিকদের মতে এবারে বাকি সকল বছর গুলোর তুলনায় অনেক বেশী লোডশেডিং (Loadsheding) হয়েছে বাকি বছর গুলোর তুলনায়। তাহলে কি করে এই বিল (Electricity Bill) বেশী আসে এই প্রশ্ন অনেকের। বিদ্যুৎ বণ্টন সংস্থা আরও জানিয়েছে যে প্রতি কেবি বিদ্যুতের জন্য আগে ১৫ টাকা করে নেওয়া হত কিন্তু এখন সেটা ৩০ হয়েছে। এই জন্য বিল বেড়েছে বলে মনে করা হচ্ছে।

এর পরিপ্রেক্ষিতে জানানো হয়েছে CESC এর মতো প্রতিমাসে Electricity Bill নেওয়া হোক যার ফলে আমজনতা একবারে বিল দেওয়ার হাত থেকে রক্ষা পায়। কিন্তু এখনো পর্যন্ত পশ্চিমবঙ্গ সরকারের তরফে বা WBSEDCL এর তরফে আধিকারিক রূপে এই নিয়ে কোন সিদ্ধান্ত জানানো হয়নি। এবারে দেখার অপেক্ষা যে ভবিষ্যতে সত্যিই কি Electricity Bill বৃদ্ধি করা হয় কিনা।

Electricity Bill কমানোর সঠিক কিছু কৌশল

১) সতর্ক থাকা
আমরা অনেক সময় দেখি যে অপ্রয়োজনে আমাদের বাড়ির ঘরে পাখা, লাইট এই সকল জিনিস জ্বলছে। কিন্তু দরকার না থাকলে সকলের উচিত এই সকল ইলেকট্রিক বস্তু আপনাদের বন্ধ্য করে রাখবেন, এর মাধ্যমে আপনাদের সাশ্রয় হবে ও ভবিষ্যৎ প্রজন্মের জন্য আমরা এর সম্পদ রেখে যেতে পারব।

২) নতুন প্রযুক্তি ব্যবহার
আপনারা চেষ্টা করবেন যে নিজের বাড়ির ইলেকট্রিক তার যেন বর্তমান সময়ের সঙ্গে সামঞ্জস্য বজায় রেখে তৈরি করা হয় এই সম্পর্কে আপনাদের সচেতন থাকতে হবে। এর ফলে শুধুমাত্র যে আপনাদের সাশ্রয় হবে সেটা নয়, এরই সঙ্গে আপনারা সুরক্ষিত থাকতে পারবেন।

৩) ভালো যন্ত্র ব্যবহার করা
দেশের সরকারের তরফে অনেক সময় একটা অ্যাড চালানো হত এবং এখনো মাঝে মধ্যে দেখা যায় যে 5 স্টার রেটিং এর সকল ইলেক্ট্রনিক বস্তু কিনলে আপনাদের Electric Bill কম খরচ করতে হবে। কিন্তু এই ধরণের জিনিসের দাম একটু বেশী হয়, তাহলেও একবার বিনিয়োগ করলে আপনারা দীর্ঘকালীন সুবিধা পাবেন।

Lottery Numbers (লটারি জেতার লাকি নাম্বার)

৪) AC এর ব্যবহার বুঝে
২৪ ডিগ্রি তাপমাত্রায় নিজের বাড়ির AC ব্যবহার করুন, আপনারা যত বেশী তাপমাত্রা কমাবেন আপনাদের বেশী ইলেকট্রিক বিল আসবে। আর এই যন্ত্রের সময়ে সময়ে সার্ভিসিং করান এর ফলে আপনার খরচ কম হবে ও লম্বা সময় আপনাদের এই যন্ত্র কাজ করবে।

Ration Card – রেশন গ্রাহকদের জন্য গুরুত্বপূর্ণ ঘোষণা করলো সরকার।

Related Articles

One Comment

  1. সব ঠিক আছে কিন্তু কি মনে করে minimum চার্জ ৪ গুন বাড়ানো হলো সাধারণ মানুষের poket কেটে টাকা লুট করার ধান্দা। শালা চোরের দেশ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button