Trending News

TOTO Rules : টোটো নিয়ে বড় সিদ্ধান্ত! চালকদের এক নির্দেশে মাথায় হাত

হকার উচ্ছেদের সমস্যার সমাধান করতে না করতেই এবার টোটো দৌরাত্ম্য (TOTO Rules) বন্ধ করতে নয়া পদক্ষেপ নিতে চলেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি (CM Mamata Banerjee). বন্ধ হতে চলেছে রাজ্যের টোটো চলাচল। মুখ্যমন্ত্রী নয়া সিদ্ধান্তে দুশ্চিন্তায় রাজ্যের অসংখ্য টোটো চালক। বিগত কয়েক দিন ধরেই দফায় দফায় রাজ্যে উত্তেজনা ছড়িয়েছে মূলত হকার (Hawkers) উচ্ছেদ ও ফুটপাত দখল মুক্ত করার পরিপ্রেক্ষিতে।

TOTO Rules Change in West Bengal.

প্রথম দিকে হকার উচ্ছেদ শুরু হলে তীব্র আন্দোলন শুরু হয় এবং সেই আন্দোলনের জেরে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় হকারদের আরও এক মাস সময় দেন। তবে হকার উচ্ছেদ বন্ধ হলেও কিন্তু ফুটপাত দখল মুক্ত করা বন্ধ হয়নি। ফুটপাত দখল মুক্ত করার কাজ কিন্তু এখনও চলছে (TOTO Rules). মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এই বিষয়ে নির্দেশ দেবার পর থেকেই কাজে নেমে পড়েছে প্রশাসন।

টোটো নিয়ে বড় সিদ্ধান্ত!

মূলত যে সকল পাকা দোকানদাররা নিজেদের দোকানের নির্ধারিত অংশের বাইরের অংশ বাড়িয়ে ফুটপাথ দখল করেছেন, তাঁদের সেই সকল জায়গা থেকে উচ্ছেদ করার কাজ হচ্ছে বলে খবর। তবে, এবার শুরু দোকান নয় টোটো (TOTO Rules) নিয়েও সামনে এল বড় খবর। জানা যাচ্ছে, তিন চাকার এই যান নিয়ে এবার কড়া পদক্ষেপের পথে হাঁটতে চলেছে প্রশাসন।

টোটো চালকদের মাথায় হাত!

রাজ্যের বিভিন্ন শহর থেকে গ্রামে অনিয়ন্ত্রিতভাবে টোটো চলছে বলে অভিযোগ এবং অনিয়ন্ত্রিতভাবে টোটো চলাচলের কারণে সবচেয়ে বড় সমস্যা তৈরি হচ্ছে যানজট। অভিযোগ সাধারণ মানুষদের টোটোর উপদ্রবের (TOTO Rules) কারণে যাতায়াত করা মুশকিল হয়ে দাঁড়িয়েছে। রাজ্যের সাধারণ মানুষের গলাতেই শোনা যাচ্ছে অভিযোগের সুর। এখন যেমন হকার এবং ফুটপাথ দখল মুক্ত করা দেখে অনেকে বলছেন, এই সব করে সুরাহা তেমন হবে না।

পশ্চিমবঙ্গে টোটো নিয়ে নির্দেশ

কারণ এখন যে সব জায়গা ফাঁকা করা হচ্ছে, কয়েক দিন পর সেখানেই লাইন দিয়ে টোটো দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা যাবে। তবে, যদি টোটো চালকরা এমনটা ভেবে থাকেন তাহলে ভুল করছেন। কেননা সিউড়ি পৌরসভার চেয়ারম্যান উজ্জ্বল চ্যাটার্জী জানিয়েছেন, ইতি মধ্যেই টোটো নিয়ে একটি মিটিং হয়ে গিয়েছে এবং আগামী দিনে টোটো নিয়ে পদক্ষেপ (TOTO Rules) গ্রহণ শুরু করা হবে।

Government Take Big Step on TOTO!

সিউড়ি শহরের মানুষেরা টোটো নিয়ে অতিষ্ঠ। যে কারণে গরিব ও সাধারণ সমস্ত মানুষদের নিয়ে তারা চলবে। কিন্তু সবকিছু একটা সিস্টেমে চলতে হবে। সিউড়ি পৌরসভার চেয়ারম্যান উজ্জ্বল চ্যাটার্জির এমন মন্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতে স্পষ্ট, আগামী দিনে টোটো দৌরাত্ম্য (TOTO Rules in West Bengal) আটকাতে ক্ষেত্রে কিছুটা লাগাম টানা হতে পারে। সিউড়ি পৌরসভা এখন কেবল পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে।

Swasthya Sathi Scheme (স্বাস্থ্য সাথী স্কিম)

তবে এরই মধ্যে উত্তর ২৪ পরগনার বারাসাত পৌরসভার একটি পদক্ষেপ নজরে এসেছে। দিন কয়েক আগেই বারাসাত পৌরসভার তরফ থেকে মোটর ভেহিকেলস আধিকারিক এবং পুলিশ প্রশাসনকে নিয়ে যৌথভাবে অভিযান চালানো হয় (TOTO Rules). সেই অভিযানে QR Code না থাকা টোটো গুলিকে ধরপাকড় করা হয় এবং সে গুলোকে সোজা বাজেয়াপ্ত করে দেওয়া হয়।

3000 টাকা দেওয়া হবে! E Shram Card নিয়ে মাসের শুরুতেই সরকারের বড় সিদ্ধান্ত

এক্ষেত্রে যে সকল টোটো চালকরা (TOTO Rules) নিয়ম অমান্য করে যাতায়াত করছেন তাদের অবিলম্বে সমস্ত রকম দিক ঠিক করে রাস্তায় টোটো নামাতে হবে, আর তা না হলে লক্ষাধিক টাকার ওই যান বাজেয়াপ্ত করা হবে বলেও জানা গিয়েছে। কিন্তু সমগ্র রাজ্যে এই ধরণের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় কিনা সেই দিকে তাকিয়ে রয়েছেন সকলে।Written by Sampriti Bose.

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button