Get-rs-12000-annually-from-Maulana-Azad-scholarship-2022-learn-the-application-details-today

আজ আপনাদের সাথে ভালো একটি স্কলারশিপ সম্পর্কে আলোচনা করবো। স্কলারশিপটির নাম মৌলানা আজাদ স্কলারশিপ। প্রতিবছর অনেক শিক্ষার্থী এই স্কলারশিপ পেয়ে থাকেন। কীভাবে মৌলানা আজাদ স্কলারশিপের (Maulana Azad Scholarship 2022) জন্য আবেদন করবেন, কারা আবেদন করতে পারবেন, আবেদন করতে কী কী লাগবে ইত্যাদি সমস্ত তথ্য নিয়ে নীচে আলোচনা করা হলো।

মৌলানা আজাদ স্কলারশিপ কী?

মৌলানা আজাদ এডুকেশনাল ফাউন্ডেশনের তরফ থেকে প্রতিবছর এই স্কলারশিপ দেওয়া হয়। উক্ত ফাউন্ডেশনের তরফ থেকে দেওয়া এই স্কলারশিপটি আবার বেগম হজরত মহল ন্যাশনাল স্কলারশিপ নামেও পরিচিত। নবম শ্রেণী থেকে শুরু করে দ্বাদশ শ্রেণী পর্যন্ত পাঠরত ছাত্রীদের এই স্কলারশিপ দেওয়া হয়। মূলত সংখ্যালঘু ছাত্রীদের পড়াশোনার জন্য উৎসাহিত করাই এই স্কলারশিপ প্রদানের প্রধান উদ্দেশ্য। মৌলানা আজাদ স্কলারশিপের মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের পড়াশোনায় সাহায্য করার জন্য মোট ১২,০০০ টাকা অবধি দেওয়া হয়।

মৌলানা আজাদ স্কলারশিপের মাধ্যমে কত টাকা করে দেওয়া হয়?

নবম ও দশম শ্রেণীর ছাত্রীদের বছরে ৫,০০০ টাকা করে (দুবছরে মোট ১০,০০০ টাকা) এবং একাদশ ও দ্বাদশ শ্রেণীর ছাত্রীদের বছরে ৬,০০০ টাকা ( দুবছরে মোট ১২,০০০ টাকা) করে দেওয়া হয়।

বাড়িতে বসেই আবেদন করুন লার্নার লাইসেন্সের জন্য, পদ্ধতি জেনে নিন

কারা মৌলানা আজাদ স্কলারশিপে আবেদন করতে পারবেন?

১. শুধুমাত্র ভারতবর্ষের সংখ্যালঘু (Minority) ছাত্রীরা এই স্কলারশিপে আবেদনের যোগ্য।
২. ভারতবর্ষের সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের মধ্যে মুসলিম, খ্রিস্টান, শিখ, জৈন, পারসি ও বৌদ্ধ ধর্মের মানুষ অন্তর্ভুক্ত রয়েছে। সুতরাং উপরোক্ত ধর্মের ছাত্রীরাই মৌলানা আজাদ স্কলারশিপের জন্য আবেদন করতে পারবেন।
৩. আগের শ্রেণীতে নূন্যতম ৫০% শতাংশ নম্বর বা তার বেশী পেতে হবে।
৪. আবেদনকারী ছাত্রীর পরিবারের বার্ষিক আয় ২ লক্ষ টাকার বেশী হওয়া চলবে না।
৫. কেন্দ্র বা রাজ্য সরকারের অন্য কোনো স্কলারশিপ পেলে এই স্কলারশিপের জন্য আবেদন করা যাবে না।

মৌলানা আজাদ স্কলারশিপের জন্য আবেদন করতে কী কী লাগবে?

১. সচিত্র পরিচয়পত্র হিসেবে আধার কার্ড
২. আগের পরীক্ষার মার্কশীট
৩. ইনকাম সার্টিফিকেট
৪. ব্যাংকের পাসবুকের প্রথম পাতার জেরক্স
৫. স্কুলের যাচাই (Verification) ফর্ম
৬. সংখ্যালঘু সার্টিফিকেট

কীভাবে মৌলানা আজাদ স্কলারশিপের জন্য আবেদন করবেন?

এই স্কলারশিপের জন্য অনলাইনে আবেদন করতে হবে। মৌলানা আজাদ স্কলারশিপের জন্য NSP পোর্টাল তথা – www.scholarships.gov.in. -এ গিয়ে আবেদন করবেন। প্রথমে প্রয়োজনীয় সব তথ্য ফিল আপ করবেন এবং তারপরে উপরোক্ত ডকুমেন্টগুলো আপলোড করে নিজের আবেদন ফর্মটি জমা (Submit) করে দেবেন।

রেশন কার্ডের সঙ্গে মোবাইল নাম্বার লিঙ্ক করুন দু মিনিটে, রইলো পদ্ধতি

আবেদনের সময়সীমা:-

২০২২-২৩ শিক্ষাবর্ষের জন্য এই স্কলারশিপের আবেদন প্রক্রিয়া ইতিমধ্যেই শুরু হয়ে গিয়েছে। স্কলারশিপে আবেদনের শেষ তারিখ এখনও অফিসিয়ালভাবে ঘোষণা করা হয়নি। তবে সম্ভবত ৩১ শে অক্টোবর, ২০২২ তারিখ পর্যন্ত এই স্কলারশিপের জন্য আবেদন করা যাবে বলে মনে করা হচ্ছে।

উল্লেখ্য, এই স্কলারশিপের জন্য কোনো রিনিউয়াল পদ্ধতি নেই। নবম থেকে দ্বাদশ শ্রেণী পর্যন্ত প্রতি ক্লাসে নতুন করে আবেদন করতে হবে। আবেদনকারী ছাত্রীদের প্রাপ্ত নম্বর এবং তাদের পরিবারের বার্ষিক আয়ের ওপর ভিত্তি করে যোগ্য ছাত্রীদের মৌলানা আজাদ স্কলারশিপ দেওয়া হয়।

অফিসিয়াল ওয়েবসাইট- Link

স্কলারশিপ সংক্রান্ত এই রকম আরও নানান গুরুত্বপূর্ণ খবর পেতে আমাদের ওয়েবসাইটটি ফলো করুন এবং নীচের ডানদিকের টেলিগ্রাম আইকনে ক্লিক করে আজই জয়েন হন আমাদের টেলিগ্রাম চ্যানেলে